অ্যাপল আইফোন ১২

অ্যাপল আইফোন ১২ এর দাম কমলো । দেখে নিন ফুল স্পেসিফিকেশন

আইফোন টেক রিভিউ তথ্য প্রযুক্তি
সকল জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে অ্যাপল আইফোন ১২ বাজারে এসেছে।প্রথমদিকে অধিক চড়া মূল্যে আইফোন ১২ সিরিজের সেট গুলো বিক্রি হলেও বর্তমানে হ্যান্ডসেটটির দাম কমে এসেছে।
সংখ্যায় কম হলেও বাংলাদেশেও আইফোন ব্যবহারকারীর সংখ্যা একেবারেই কম। প্রচুর মানুষের আগ্রহ আছে Apple iPhone নিয়ে। তাই মানুষ সবসময় আশায় থাকে আইফোনের নতুন মডেলের হ্যান্ডসেট কবে রিলিজ হবে।
আপনি কি আইফোন প্রেমী, তাহলে আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্স এর বিস্তারিত জানতে নিচের লেখাটি পড়ুন,
Apple iphone এর নতুন কি কি ফিচার থাকছে, দাম কত, ক্যামেরা কেমন এসব নিয়ে মানুষের আগ্রহের কমতি নেই। আজ আমরা আইফোন ১২ নিয়ে কথা বলবো। আইফোন। ১২ এর বিভিন্ন মডেলের বিস্তারিত বিবরন তুলে ধরার চেষ্টা করবো।
এবার এসে গেল মোবাইলে আনলিমিটেড ডাটা সার্ভিস
২০১২ সাল থেকে সেপ্টেম্বর মাসের জন্য অপেক্ষায় থাকতো অ্যাপল প্রেমীরা।কারন প্রতিবছর সেপ্টেম্বরে অ্যাপল তাদের নতুন পন্য বাজারে ছাড়ে।

অ্যাপল আইফোন ১২

এন্ড্রোয়েড ফোনে বাংলা ভয়েস টাইপিং সুবিধা পেতে পড়ুনঃ-
প্রতি বছরের ন্যায় এবারও এপেল প্রেমীরা সেপ্টেম্বরে প্রতিক্ষায় ছিলো Apple iPhone 12 নিয়ে কোন ঘোষনা আসে কি না সেজন্য।
কিন্তু করোনার কারনে পরিবর্তিত বিশ্ব পরিস্থিতির সামনে দাঁড়িয়ে এপেল কোম্পানী কিছুটা সময় নিলো। অবশেষে সেপ্টেম্বরের পরিবর্তে এই অক্টোবরে অ্যাপল আইফোন ১২ বাজারে ছাড়লো।
সাধ্যের মধ্যে মধ্যম বাজেটের কিছু ল্যাপটপের ফুল স্পেসিফিকেশনঃ

কি কি সুবিধা আছে অ্যাপল আইফোন ১২ হ্যান্ডসেটটিতে?

নতুন কি কি থাকছে iPhone 12 তে।আসুন দেখে নেওয়া যাক অ্যাপল আইফোন ১২ এর দামসহ ফুল স্পেসিফিকেশনঃ-

নেটওয়ার্কঃ-

সবচেয়ে বড় আকর্ষণ হলো আইফোন ১২ তে থাকছে সর্বাধুনিক ৫ জি প্রযুক্তি। মোট ৪ টি সংস্করনের আইফোন ১২ বাজারে ছাড়া হবে।

সাইজঃ-

সংস্করন অনুযায়ী সাইজের ভিন্নতা থাকছে। যার মধ্যে ২ টি রেগুলার এবং ২ টি প্রো ভার্সন।
আইফোন ১২ নামে সংস্করনটির সাইজ হলো ৫.৪ ইঞ্চি।
এরপর থাকছে আইফোন ১২ ম্যাক্স, যার সাইজ হবে ৬.১ ইঞ্চি।
এরপরের ভার্সন টি হলো আইফোন ১২ প্রো, যার সাইজ হলো ৬.১ ইঞ্চি।
আর সর্বশেষ সংস্করনটি হলো আইফোন ১২-প্রো ম্যাক্স,যার সাইজ হবে ৬.৭ ইঞ্চি।
বাংলালিংক এসএমএস প্যাকেজ এবং এক্টিভেশন কোড গুলো দেখে নিন

ক্যামেরাঃ-

শুধু সাইজেই নয় সংস্করন ভেদে ফোনের ক্যামেরা এবং ব্যাটারীতে পার্থক্য থাকবে।আইফোন-১২ তে ৩ টি ক্যামেরা সেট আপ থাকবে।
যার প্রাইমারী সেন্সর থাকবে ১৬ মেগা পিক্সেল হোয়াইট এংগেল ক্যামেরা।আইফোন-১২ ও আইফোন-১২ ম্যাক্স সংস্করনের ফোন দুটির পিছনে থাকবে ২ টি করে ক্যামেরা।
এছাড়াও আইফোন-১২ তে থাকবে টেলি ফটো ক্যামেরা।আইফোন ১২ প্রো ও আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্স এর পিছনে থাকবে ৩ টি করে ক্যামেরা।
দেখে নিন আইফোন ৭ প্লাসের বিস্তারিত

র‍্যাম/প্রসেসরঃ-

আইফোন ১২ ও আইফোন ১২ ম্যাক্স সংস্করনের ফোন ২ টি তে থাকবে ৪ জিবি র‍্যাম।আইফোন ১২ প্রো ও আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্স ফন ২ টি তে থাকবে ৬ জিবি র‍্যাম।
এছাড়াও আইফোন-১২ এর সব সংস্করন গুলোতে ব্যবহার করা হয়েছে এ-১৪ বায়োনিক প্রসেসর।যা এর গতি ও কারয ক্ষমতার মধ্য সম্বনয় করবে।

বডিঃ-

আইফোন ১২ ও আইফোন ১২ ম্যাক্স এর বডি হবে স্টেইলনেস স্টীল এ তৈরি।
আর আইফোন ১২ প্রো ও আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্স এর বডি হবে এলুমিনিয়ামের তৈরি।

ব্যাটারীঃ-

আইফোন ১২ ও আইফোন-১২ ম্যাক্স সংস্করন ২ টির ব্যাটারী থাকবে ২৭৭৫ এম এইচ ক্ষমতাসম্পন্ন।
আর আইফোন ১২ প্রো ম্যাক্স সংস্করন টির ব্যাটারী থাকবে ২৭৭৫ এম এইচ এবং আইফোন-১২ প্রো ম্যাক্স এ থাকবে ৩৬৮৭ এম এইচ ক্ষমতাসম্পন্ন ব্যাটারী।

 

অ্যাপল আইফোন ১২

অ্যাপল আইফোন-১২ এর দামঃ-

আইফোন-১১ এর দাম ছিল ৬০ হাজার টাকা। সেই হিসাবে নতুন প্রযুক্তির ব্যবহার সত্ত্বেও আ্যপেল আইফোন ১২ এর দাম খুব বেশী হওয়ার কথা নয়। প্রথমদিকে অ্যাপল আইফোন ১২ সংস্করন ভেদে চড়া দামেই বিক্রি হয়েছে।কিন্তু পরবর্তীতে অ্যাপল তাদের সর্বশেষ ভার্সন আইফোন ১৩ নিয়ে ব্যস্ত হয়ে পড়ার সুযোগে iPhone 12 এর দাম অনেকটা কমে যায়।বর্তমানে অ্যামাজনে ২৫৬ জিবির আইফোন ১২ প্রো মিলবে ৯৯ হাজার ৯৯০ টাকায়।
Apple iphone 12 সম্পর্কে আরোও বিস্তারিত জানতে Apple Store ভিজিট করুন।
এন্ড্রোয়েড ফোনে লিনাক্স অপারেটিং সিস্টেম চালাতে পড়ুনঃ-

শেষকথাঃ-

অ্যাপল আইফোন প্রেমীরা কখনোই দামের দিকে তাকায় না।আর অ্যাপল আইফোন ১২ সেরকমই একটি হ্যান্ডসেট যেটি চোখ বন্ধ করে কিনে ফেলা যায়,যদি পকেটে টাকা থাকে।

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published.